নিজেকে স্মার্ট রাখা

নিজেকে স্মার্ট রাখার কয়েকটি মাধ্যম!

নিজেকে স্মার্ট রাখার কয়েকটি মাধ্যম আজকে আমি আপনাদের সামনে আলোচনা করব অর্থাৎ এই আর্টিকেলের মধ্যে লিখে আপনাদের সামনে শেয়ার করব আপনারা আশা করি সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি পড়বেন এবং আপনার মতামত কমেন্ট বক্সে জানাবেন। নিজেকে স্মার্ট রাখার জন্য মূলত আমরা অনেক কিছুই করে থাকে আমরা অনেক চেষ্টা করে থাকি অনেক সময় আমরা বিভিন্ন দামি পোশাক পরিধান করে নিজেকে স্মার্ট তৈরি করি। নিজেকে সবার সামনে প্রেজেন্ট করা নিজেকে সুন্দরভাবে স্মার্ট করা নিজেকে মানুষের সামনে সুন্দরভাবে বুক ফুলিয়ে হাটানো হচ্ছে স্মার্টনেস।

অনেকেই মনে করে স্মার্টনেস বলতে অনেক কিছু বুঝায় কিন্তু না স্মার্টনেস কয়েক ধরনের হয়ে থাকে যার মধ্যে একটা হচ্ছে পপুলারিটি। আপনার পপুলারিটি কেমন মানুষ আপনাকে কেমন চীনে মানুষের কাছে আপনি কেমন ভাবে পরিচিত এই বিষয়টাকে অনেকটাই স্মার্টনেস বলা হয়ে থাকে। মানুষ আপনাকে কতটা ভালোবাসে মানুষ আপনাকে কতটা চাই এই বিষয়টি হচ্ছে পপুলারিটি এবং স্মার্টনেস বলা যেতে পারে। নিজেকে স্মার্ট রাখার আরো মাধ্যম হচ্ছে আপনি ভালো মানুষের সাথে হাঁটাচলা করুন ভালো মানুষের সাথে যোগাযোগ করুন আপনি যাদের সাথে হাঁটাচলা করছেন তাদেরকে ভালো হতে সহযোগিতা করুন।

নিজেকে স্মার্ট রাখার উপায়?

নিজেকে স্মার্ট রাখার বেশ কয়েকটি উপায় এর মধ্যে গুরুত্বপূর্ণ এবং পপুলার কয়েকটি মাধ্যম হচ্ছে- সব সময় ভালো পোশাক পরিধান করা, ভালো মানুষের সঙ্গে ওঠাবসা করা কিংবা চলাচল করা, ফ্রেন্ডলিস্ট কিংবা বন্ধুদের লিস্টে যারা রয়েছেন তারা ভালো মনের মানুষ এমন মানুষদের সাথে চলাফেরা করা, আপনার আশে পাশে যারা আছে তারা যেন আপনাকে অনুসরণ করে এমন কিছু করা, আপনাকে চাই আপনাকে ভালোবাসে এমন কিছু করা সহ আরও বিভিন্ন কিছু কাজ রয়েছে।

নিজেকে স্মার্ট রাখার উপায় হচ্ছে আপনি সর্বদা সবসময় ভালো পোশাকে ভালো জামা কাপড় জুতো এগুলো পরিধান করুন। যখনই কোথাও বের হবেন মানুষের মাঝে যাবেন ভালো পোশাক পরার চেষ্টা করুন বর্তমানে যে পোশাকগুলো মানুষ পরিধান করছে যেগুলো মানুষ স্মার্টনেস হিসেবে পরিচিতি পেয়েছে সেগুলো আপনি পড়ুন আপনাকে কতটা ভালো দেখায় এটা আপনি নিজেই বুঝতে পারবেন নিজের উপর অনেকটা ডিপেন্ড করে। আপনার আশেপাশের যারা আপনি স্মার্ট রয়েছেন তারা কি পরিধান করে সেগুলো অনুসরণ করুন আপনিও চেষ্টা করুন সে রকমের কিছু জামাকাপড় পরার জন্য।

আরো পড়ুনঃ  ভালো বয়ফ্রেন্ড হয়ে উঠার গুরুত্বপূর্ণ ৫ টি টিপস!

নিজেকে স্মার্ট রাখা কেন জরুরি?

নিজেকে স্মার্ট রাখবেন এজন্য কেননা বর্তমান সমাজ বর্তমান সময়ে মানুষ কি করে সেগুলো অনুসরণ করতে হবে। আপনি যদি একজন মধ্যবিত্ত ফ্যামিলির হয়ে থাকেন আপনি কেমন দেখতে কেমন একটা মানুষ জানতে চাইবে এজন্য আপনি স্মার্ট হবেন এজন্য নিজেকে স্মার্ট রাখা অনেক বেশি জরুরী। আপনার স্মার্টনেস অনেকের কাছে খুব বেশি গুরুত্বপূর্ণ। আপনার এসএমএস দেখে হয়ত অনেকেই আপনাকে ভালোবাসবে অনেকের কাছে আপনি ভালো লাগার একটা পাত্র হয়ে যাবেন বর্তমানে তরুণ-তরুণীরা যে পরিমাণ স্মার্টনেস হচ্ছে এদের মধ্যে আপনি যদি এ-স্মার্ট না হন সেক্ষেত্রে আপনার মূল্যায়ন টা একটু কম হয়ে থাকে।

সর্বদা সবসময় চেষ্টা করবেন কিভাবে স্মার্ট হওয়া যায় নিজেকে কিভাবে স্মার্ট রাখা যায়। সর্বদা চেষ্টা করুন নিজের স্মার্টনেস কে সবার সামনে সুন্দর ভাবে প্রেজেন্টেশন করা চেষ্টা করুন নিজের স্মার্টনেস কে লং টাইম ধরে রাখা। বর্তমানে তরুণ-তরুণীরা অনেক বেশী স্মার্টনেশ হচ্ছে তাদের স্মার্টনেস মানুষ খুব বেশি পছন্দ করছে। স্মার্টনেস কয়েক ধরনের তার মধ্যে গুরুত্বপূর্ণ কয়েকটি স্মার্টনেস হচ্ছে মানুষকে বেশি প্রাধান্য দেওয়া। অনেক বেশী স্মার্টনেশ তার মধ্যে বেশী স্মার্টনেশ হচ্ছে মানুষ আপনাকে কত বেশি প্রপারলি ভালবাসি সেটা দেখা।

ধরুন আপনি কোন নির্বাচন করবেন সেখানে মানুষ আপনাকে কতটা চাই সেটা আপনি সহজেই বুঝতে পারবেন আপনার ওয়ার্ড কিংবা আপনার উপজেলা অথবা জেলাতে আপনাকে মানুষ চায় কি চায় না অথবা আপনি নির্বাচন করলে সেখানে জয়ী হতে পারবেন কি পারবেন না এটা আপনি কিন্তু সহজেই বুঝতে পারবেন তাই মানুষ আপনাকে কিভাবে চায় কোন রূপে চাই এটাই তো আপনি বুঝতে পারবেন তাই আপনার উচিত তাদের যাওয়ার মত করে রূপান্তরিত হওয়া চাওয়ার মতো করে তৈরি হওয়া।

আরো পড়ুনঃ  তোমার প্রেমে আমি পাগল: ভালোবাসার গল্প পর্ব-১

স্মার্টনেসের গুরুত্ব অপরিসীম!

নিজেকে স্মার্ট রাখা

আপনি কাউকে ভালোবাসলে না কিংবা আপনাকে কেউ ভালোবাসে এটা আপনি জানেন না কিন্তু আপনাকে ভালবাসার মূল কারণ হচ্ছে আপনার স্মার্টনেস আপনাকে তাদের ভালো লাগে এজন্য আপনাকে তারা মূলত ভালোবেসে থাকে। অনেকের কাছে আপনারে স্মার্টনেস অনেক বেশি গুরুত্বপূর্ণ চেষ্টা করুন সবার সামনে নিজেকে কথাবার্তা সব কিছুতে স্মার্ট হয়ে থাকেন এমন কিছু করুন যাতে মানুষ আপনাকে সহজেই বুঝতে পারে।

স্মার্টনেসের গুরুত্ব অনেক বেশি সবাই চাই আমরা সবার সামনে প্লেসমেন্ট হয়ে থাকি কথাবার্তা পোশাক-আশাক সবকিছু যেন একটু স্মার্টনেস থাকে এমন টাই আমরা সবাই চাই কিন্তু আসলে অনেকের অর্থের অভাবে হয়ে ওঠে না আবার অনেকের হয়ে উঠলেও নিজের ব্যক্তিগত কারণে সেটা প্রকাশ করে না মূলত স্মার্টনেসের গুরুত্ব অনেক বেশি নিজেকে স্মার্ট রাখা এটা সবার কাছেই একটা প্রিয় জিনিস সবাই চায় নিজেকে স্মার্ট রাখি নজেকে সবার সামনে হাঁটাচলা করি সবার সামনে চলাচল করি।

সবার নজর কেড়ে নিয়ে স্মার্টনেস হতে হবে এমনটা বিষয় না স্বাভাবিক ভাবে জীবন-যাপন করে সেভাবেই থাকো তার থেকে একটু বেশি স্মার্ট যাতে মানুষ আপনাকে চিহ্নিত করতে পারে তাতে মানুষ বলতে পারে যে ওই ছেলেটা ওই ছেলেটার স্মার্টনেস খুব ভালো। যাতে মানুষ আপনাকে পছন্দ করে এমন কিছু করুন। আপনার ভার্সিটি কলেজ কিংবা স্কুলের মেয়েরা যেন একবার হলেও আপনার দিকে ঘুরে তাকায় এমন কিছু করুন। অনেক সময় অনেক মেয়েরা কেবলমাত্র স্মার্টনেস দেখে খুব বেশি পছন্দ করে থাকেন স্মার্টনেস দেখে খুব বেশি ভালোবেসে থাকেন এমন কিছু করুন যাতে সেরকম টা আপনার সাথে হয়ে থাকে।

আরো পড়ুনঃ  ভালোবাসার শক্তি কেমন হয়: ভালোবাসার গল্প পর্ব-২

স্মার্টনেসের ভালোবাসার গুরুত্ব!

স্মার্টনেস হবেন সেই সাথে খেয়াল রাখতে হবে যাতে করে মানুষ আবার আপনাকে খারাপ না বলে কারণ বর্তমানে স্মার্টনেস হতে গিয়ে মানুষ ছিড়া প্যান্ট ছেড়া জামা এগুলো পড়ে মানুষের মধ্যে ঘোরাফেরা করে মানুষের মত চলাচল করে এগুলো করা থেকে বিরত থাকতে হবে এগুলো বর্তমান সমাজের মানুষ ঘিন্না করে এগুলো কোন স্মার্ট হওয়ার পোশাক হতে পারে না। স্মার্ট হওয়ার পোশাক অন্য রকম হয়ে থাকে সেগুলো আপনি প্রদান করুন তাহলে তার সুবিধা আপনি ভোগ করতে পারবেন।

আপনার ভার্সিটির মেয়েরা যেন আপনার দিকে তাকিয়ে থাকে এমন বিহিত করুন তাদের সাথে ভালো ব্যবহার করুন শুধু পোশাক দেখে মানুষ মানুষকে স্মার্ট ভাবে না কথাবার্তা চলাচল হাঁটাচলা বন্ধুর সাথে আড্ডা দেওয়া সব গুলো অনুসরণ করে সব গুলো ফলো করে মানুষ আপনাকে স্মার্টনেস হিসেবে উপাধি করবে গুরুত্ব দিবে। আর আপনি যদি শুধু পোশাক পরিধান করেন ছিড়া প্যান্ট ছেড়া জামা তাহলেই আপনি স্মার্ট হতে পারবেন না স্মার্ট হওয়ার জন্য আপনার দক্ষতা আপনার কথাবার্তা আপনার আচার-আচারণ সবগুলো ভাল থাকতে হবে এগুলোর মাত্রা খুব বেশি থাকতে হবে।

স্মার্ট হওয়ার জন্য এটাই আমি মনে করি অনেক বেশি তবে পোশাক অনেক বেশি স্মার্ট হওয়ার জন্য জরুরী। আপনার পোশাক কেমন এগুলো অনেক সময় মেন্টেন করে আপনার পোশাক-আশাক কেমন কি এগুলো গুরুত্ব রয়েছে। স্মার্ট হওয়ার জন্য এটা একটা গুরুত্বপূর্ণ টিপস। একবার কখনোই পোশাকের দিক থেকে নিজেকে স্মার্ট মনে করবেন না স্মার্ট হতে হলে আপনার কথাবার্তা আচার আচরন চালচলন মানুষের সাথে উঠাবসা তাদের সাথে চলাচল করার সবকিছু ঠিক থাকতে হবে তাহলেই কেবলমাত্র নিজেকে স্মার্ট হিসেবে মানুষের সামনে পেশ করতে পারবেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *